Tuesday, September 8, 2015

ওদের বর্ডার পার হতে ভিসা লাগেনা? (Don't they need visa to cross the border?)


[English version has given below]

ভারতের বর্ডারের অফিসের সামনের উঠানে দাড়িয়ে দাড়িয়ে পা ব্যাথা করছি। কখন ভিসা প্রসেসিং শেষ হবে, কখন নেপাল যাব। এরমাঝে দেখলাম লোকজন সব বিনা বিকারে সোজা হেটে, জীপে করে, সামনে রাস্তা দিয়ে দিব্যি চলে যাচ্ছে। পুলিশ চুপচাপ দেখছে। বিশেষ করে চিনা চেহারার মানুষদের তো ডেকে কিছু জিগ্যেসও করছে না। কি ব্যপার? তাহলে কি চিনা চেহারা হলে ভিসা লাগেনা? এরমধ্যে দেখলাম কিছু চাইনিজ চেহারা লোক ভিসার জন্য দাড়িয়ে গেল। আবার চিন্তা করলাম এরা তাহলে ভিসা কেন চাচ্ছে?

দাড়িয়ে থেকে পা ব্যাথা হয়ে যাওয়ায় পাশে চা এর দোকানে গেলাম। সেখানে ঐ চাইনিজরাও এলো। এরপর শুরু হলো সমস্যা। দোকানির ভাষা ওরা বোঝেনা, ওদের ইংলিশ উচ্চারন দোকানী বোঝে না। পরোপোকারী আমি এগিয়ে গিয়ে একটা মিটমাট করে দিলাম। তখন ওরা আমার সাথে পরিচিত হলো। ওরা আসলে কোরিয়ান। এই প্রথম কোন বাংলাদেশী দেখল। ভালো । নিজের চেহারা নিয়ে একটু ভাবলাম, এরা তো ভাববে সব বাংলাদেশীরই বোধহয় এই চেহারা, যেমন আমি ওদের দেখে ধরে নিয়েছিলাম।

যাই হোক ভীর না থাকা সত্ত্বেও আমাদের মাত্র ৬ঘন্টা লেগেছিল, নেপালের বর্ডার শহরে হোটেলে উঠতে। আর এও জানলাম, নেপাল-ভারত বর্ডার খোলা। তাই নেপালী আর ভারতীয়দের বর্ডার পার হতে কোন ভিসা লাগেনা। আমি ভাবলাম, বাংলাদেশীরা যদি কোন কথা না বলে ওদের মতোন সোজা বর্ডার পার হয়ে যায় তাহলে কি বুঝতে পারবে?

[১০ ই ডিসেম্বর, ২০০৭]

At India-Nepal border, we were standing on Indian border office. The visa process was taking too long that I was feeling pain on my legs. I couldn’t understand when this visa process will complete and we can go to Nepal.

By this time I saw some people were walking or by jeep crossing the border in front of us to Nepal without hesitation or interrupt by the border Indian police. Especially people, who have china face, didn’t get any hassle by the police. What’s going on? If anyone has china face, no need any visa? By this time I saw some Chinese faced people came and stand in the line for visa? Again thought, then why these people need visa?

The visa process was taking long time that I couldn’t stand anymore. So, I went to a tea stall. Those Chinese faced people also went there. Then another problem rose. The tea maker couldn’t understand their English pronunciation and they don’t understand the shop keeper’s language. You know, I am a very helpful person. So, I went there and solve the problem. Then they gave their identification to me. They were from Korea.  And for the first time they saw any Bangladeshi. I was thinking about my face, because they will guess all Bangladeshi has this kind of face, as I was thinking all Korean’s have that kind of face which they have.

Though there were not much people at the border, we took only 6 hours to get in a hotel of Nepal border from India. Then I get to know Nepal-India border is open. That’s why Nepali and Indian people don’t need visa to move from one country to another. I was thinking if any Bangladeshi cross the border without saying anything will they understand it, because we have same face like Indian’s ;)


[December 10, 2007]
Post a Comment